আজ : শুক্রবার ║ ২৪শে মে, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ

আজ : শুক্রবার ║ ২৪শে মে, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ║১০ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ║ ১৬ই জিলকদ, ১৪৪৫ হিজরি

দোয়েল সাংস্কৃতিক গোষ্ঠীর আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত

দোয়েল সাংস্কৃতিক গোষ্ঠীর উদ্যোগে ফুলকি স্কুলে (এ.কে.খান অডিটোরিয়াম) হল মিলনায়তনে আলোচনা সভা, পুরস্কার বিতরণ ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান ২৪ জানুয়ারি শুক্রবার বিকেলে অনুষ্ঠিত হয়। উল্লেখ্য, ২৮ ডিসেম্বর শনিবার বিকেলে মহান বিজয় দিবস স্মরণে কদম মোবারক এম.ওয়াই উচ্চ বালক-বালিকা বিদ্যালয়ে শিশু কিশোর চিত্রাংকন ও সাংস্কৃতিক প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত হয়। অনুষ্ঠানে উদ্বোধক ছিলেন অধ্যক্ষ ড. মুহাম্মদ সানাউল্লাহ। বিচারক ছিলেন শিল্পী সুজিত রায় ও শিল্পী দিলীপ দাশ। তবলায় ছিলেন অনিক সেনগুপ্ত। দিলীপ সেনগুপ্তের সঞ্চালনায় আলোকচিত্র সাংবাদিক ওচমান জাহাঙ্গীরের সভাপতিত্বে পুরস্কার বিতরণী সভায় প্রধান অতিথি হিসেব উপস্থিত ছিলেন সাবেক সিনিয়র সহকারী জজ এডভোকেট মনজুর মাহমুদ খান।

উদ্বোধক ছিলেন অধ্যক্ষ ড. মুহাম্মদ সানাউল্লাহ। বিশেষ আলোচক ছিলেন গেরিলা মুক্তিযোদ্ধা ফজল আহমদ, আওয়ামী লীগ নেতা আবুল বশর, মানবাধিকার সংগঠক হাসান মুরাদ, কবি মাদল বড়–য়া, জয় বাংলা শিল্পী গোষ্ঠীর সভাপতি সজল দাশ, গণসংগীত শিল্পী হানিফুল ইসলাম চৌধুরী, প্রফেসর খোরশেদ আলম, কবি আসিফ ইকবাল, সংগঠক ছবির আহমদ, মানবাধিকার নেত্রী সাথী কামাল। স্বাগত বক্তব্য রাখেন দোয়েল সাংস্কৃতিক গোষ্ঠীর সভাপতি হারাধন নাহা বাসু। সংগীত পরিবেশন করেন শিল্পী কাকলী দাশগুপ্তা, পার্থ চৌধুরী, মুন্নী নন্দী, নয়ন মহাজন, রিমি সিন্হা, সুপ্রিয়া। মঙ্গল প্রদীপ জ্বালিয়ে নৃত্য পরিবেশন করেন নিবৃতি নাথ। যন্ত্র সংগীতে ছিলেন কি-বোর্ডে বাবুল চৌধুরী, অক্টোপ্যাডে রূপম, তবলায় অনিক সেনগুপ্ত। প্রধান অতিথি এডভোকেট মনজুর মাহমুদ খান বলেন, দোয়েল সাংস্কৃতিক গোষ্ঠীর আয়োজনে আজকের অনুষ্ঠানটি প্রাঞ্জল ও মনোমুগ্ধকর। সেজন্য সংগঠনের কর্মকর্তারা প্রশংসার দাবী রাখে। সংস্কৃতি মানুষের মনকে পরিশুদ্ধ করে, সুন্দর পথে চলার স্পৃহা জাগায়, প্রতিযোগিতার মাধ্যমে শিশুদের মেধা বিকাশের সুযোগ ঘটে। সুতরাং আরো বেশি করে শিশু কিশোরদের প্রতিযোগিতায় অশংগ্রহণ করতে হবে। উদ্বোধক ড. মুহাম্মদ সানাউল্লাহ বলেন, সংস্কৃতি হচ্ছে একটি গুরুত্বপূর্ণ মাধ্যম। যার মাধ্যমে সমাজ ও দেশ বিনির্মাণে ভূমিকা পালন করা যায়। তবে সেই সংস্কৃতি হতে হবে দেশীয় সংস্কৃতি। তিনি শিশু কিশোরদের লেখাপড়ার পাশাপাশি কবিতা, গান, নৃত্য, নাটক ও ক্রীড়ায় সম্পৃক্ত হওয়ার আহ্বান জানান। এতে সমাজ ও দেশ উপকৃত হবে। পরে প্রধান অতিথি অন্যান্য অতিথিদের সাথে নিয়ে প্রতিযোগিতায় বিজয়ীদের পুরস্কার বিতরণ করেন।

Share on facebook
Facebook
Share on twitter
Twitter
Share on linkedin
LinkedIn
Share on whatsapp
WhatsApp
Share on email
Email
Share on print
Print

আজকের সর্বশেষ সংবাদ