আজ : রবিবার ║ ১৬ই জুন, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ

আজ : রবিবার ║ ১৬ই জুন, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ║২রা আষাঢ়, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ║ ১০ই জিলহজ, ১৪৪৫ হিজরি

 বাসচালকের আদালতে স্বীকার নারী শ্রমিককে ধর্ষণের পর হত্যা

দেশচিন্তা নিউজ ডেস্ক:

রাজধানীর ধামরাইয়ে চলন্ত বাসে মমতা আক্তার নামে এক নারী শ্রমিককে ধর্ষণের পর হত্যার কথা স্বীকার করে আদালতে ১৬৪ ধারায় জবানবন্দি দিয়েছে গ্রেফতার বাসচালক সোহেল ওরফে ফিরোজ। ১১ জানুয়ারি শনিবার বিকালে ঢাকা জেলার চিফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতের ম্যাজিস্ট্রেট ফাইরুজ তাসনিনের কাছে আসামি স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দেন।
কোর্ট ইন্সপেক্টর মেজবাহ উদ্দিন ও ধামরাই থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) দীপক চন্দ্র সাহা বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।
ওসি দীপক চন্দ্র সাহা বলেন, মমতা আক্তার নামে এক শ্রমিককে ধর্ষণের পর হত্যার ঘটনায় পুলিশ অভিযুক্ত বাসচালক সোহেল ওরফে ফিরোজকে জেঠাইল গ্রাম থেকে আটক করে। পরে প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে ও আদালতে ১৬৪ ধারায় ওই নারীকে ধর্ষণের পর হত্যার কথা স্বীকার করে জবানবন্দি দেয় আসামি। পরে তাকে জেলহাজতে পাঠানো হয়।
উল্লেখ্য, শুক্রবার কাজে যোগ দিতে ভোর ৪টার দিকে কাঁঠালিয়ার কাওয়ালীপাড়া-বালিয়া স্থানীয় সড়ক থেকে অফিসের বাসে ওঠেন মমতা। অন্য শ্রমিকরা বাসে ওঠার আগেই বাসচালক সোহেল ওই নারী শ্রমিককে নির্জন স্থানে নিয়ে বাসের মধ্যেই ধর্ষণ করে। পরে তার লাশ ঝোঁপের মধ্যে ফেলে রেখে যায়। এদিকে সন্ধ্যা হয়ে গেলেও নারী শ্রমিক বাড়িতে না ফেরায় তার পরিবারের সদস্যরা ধামরাই থানায় একটি জিডি করেন। এ ঘটনার পর রাতেই কাঁঠালিয়া গ্রামে নিজ বাড়ি থেকে কিছু দূরে কাওয়ালীপাড়া-বালিয়া মহাসড়কের পাশে একটি ঝোঁপ থেকে নারী শ্রমিকের লাশ উদ্ধার করে পুলিশ।

Share on facebook
Facebook
Share on twitter
Twitter
Share on linkedin
LinkedIn
Share on whatsapp
WhatsApp
Share on email
Email
Share on print
Print

আজকের সর্বশেষ সংবাদ