আজ : রবিবার ║ ১৬ই জুন, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ

আজ : রবিবার ║ ১৬ই জুন, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ║২রা আষাঢ়, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ║ ১০ই জিলহজ, ১৪৪৫ হিজরি

জেলা শিল্পকলা একাডেমী চট্টগ্রামে বিনোদনের রঙ এর ৪র্থ বর্ষপূর্তি অনুষ্ঠিত

বিনোদন নিউজ ডেস্ক:

চট্টগ্রাম হতে নিয়মিত প্রকাশিত একমাত্র বিনোদন ম্যাগাজিন বিনোদনের রঙ ৫ম বর্ষে পর্দাপন উপলক্ষে ৪র্থ বর্ষপূর্তি উৎসব ০৮ নভেম্বর বৃহস্পতিবার জেলা শিল্পকলা একাডেমী মিলনায়তনে অনুষ্ঠিত হয়। এতে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন প্রফেসর শিরীন আখতার (উপ-উপাচার্য, চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়), প্রধান বক্তা নাজিম উদ্দিন শ্যামল (সভাপতি, চট্টগ্রাম সাংবাদিক ইউনিয়ন), উদ্বোধক আলহাজ্ব সৈয়দ মাহমুদুল হক (প্রেসিডিয়াম মেম্বার, বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ) বিশেষ অতিথি আলহাজ্ব জাহাঙ্গীর আলম চৌধুরী (কাউন্সিলর ৩৬ নং গোসালডাঙ্গা ওয়ার্ড), এজাজ ইউসুফী (ফিচার সম্পাদক, দৈনিক পূর্বকোণ), সাইফুল আলম বাবু (সাধারণ সম্পাদক, জেলা শিল্পকলা একাডেমী কার্যকরী পরিষদ), মাইনুদ্দিন দুলাল (ব্যুরো প্রধান, একাত্তর টিভি) সরোয়ার আমিন বাবু (ব্যুারো প্রধান, আর টিভি), অনিন্দ্যো টিটু (ব্যুরো প্রধান, গাজী টিভি), ড. মোহাম্মদ মাসুম চৌধুরী (প্রাবন্ধিক ও রাজনীতিক), সজল চৌধুরী (লেখক ও প্রাবন্ধিক), সৈয়দ দিদার আশরাফী (সভাপতি, চবিসাস), মো. জসিম উদ্দিন (বিশিষ্ট ব্যবসায়ী ও সমাজসেবক), হাজী চান্দু মিয়া (বিশিষ্ট ব্যবসায়ী ও সমাজসেবক)।

বিনোদনের রঙ এর প্রধান সম্পাদক আলী আহমেদ শাহিন এর সভাপতিত্বে ও স্বনামধন্য উপস্থাপিকা দিলরুবা খানম এর সঞ্চালনায় ৪র্থ বর্ষপূতি অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে প্রফেসর শিরীন আখতার বলেন, চট্টগ্রাম হতে একমাত্র বিনোদন পত্রিকা বিনোদনের রঙ বের হয় এটা আমার জানা ছিল না। আমি বিনোদনের রঙ পত্রিকাটি দেখে এটার সাজানো গোছানো ও পরিচ্ছন্নতা দেখে আর্বিভূত। শুধু বিনোদনের নিউজ দিয়ে যে একটি পত্রিকা বের করা যায় তার একমাত্র নির্দেশন বিনোদনের রঙ। বিশেষ করে এই পত্রিকার সম্পাদক নাসির হোসাইন জীবন যে এত তরুন বয়সে এক বড় একটি গুরুত্বপূর্ণ দায়িত্ব নিয়ে নিয়মিত বিনোদনের রঙ বের করছে তা প্রশংসার দাবিদার। আমি নাসির হোসাইন জীবনের সাহস ও যোগ্যতাকে সম্মান জানাই। তরুন এই লেখকের ফেলে আসা কর্মময় জীবন জুড়ে শুধু সংস্কৃতি। সংস্কৃতিকে ভালবেসে সংস্কৃতিতে যুক্ত থাকার প্রত্যয়ে নাসির হোসাইন জীবন বিনোদনের রঙ বের করছেন যা বিরল। আমি মনে করি নাসির হোসাইন জীবনের সম্পাদনায় বিনোদনের রঙ চট্টগ্রামের সংস্কৃতিতে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা ও অবদান রাখবে। প্রধান বক্তা নাজিম উদ্দিন শ্যামল বলেন, চট্টগ্রাম হতে নিয়মিত পত্রিকা বের করা কষ্টসাধ্য ব্যাপার। তার মাঝেও বিনোদনের রঙ পত্রিকাটি নিয়মিত বের করছে তার জন্য সাধুবাদ জানাই এই পত্রিকার সম্পাদক নাসির হোসাইন জীবনকে।

এত সুন্দর সাজানো গোছানো শুধু বিনোদন দিয়ে পত্রিকা বের করছেন তা প্রশংসার দাবীদার। আমি আপনাদের বলবো এই পত্রিকাটি আরো পরিমার্জন করে বের করুন তাহলে বিনোদনের রঙ চট্টগ্রামের পাঠকদের কাছে সমাদৃত হবে। আমি আপনাদের সাথে আছি থাকবো। আমার সহযোগিতা আপাদের প্রতি সব সময় থাকবে। উদ্বোধক সৈয়দ মাহমুদুল হক বলেন, এত তরুন একজন লেখক এই বয়সে এত সুন্দর পরিপাটি একটি পত্রিকা বের করছেন তা দেখে আমি অভিভূত। তার বিগত কর্মময় জীবন সম্পর্কে জেনে আমি আরো বেশী আপ্লুত। বিনোদনের রঙ চট্টগ্রামের সংস্কৃতিকে গুরুত্ব সহকারে পাঠকদের সামনে তুলে ধরছেন এটা সংস্কৃতির জন্য বিরাট পাওয়া। আমি বিনোদনের রঙ এর উত্তোরোত্তর সাফল্য কামনা করছি। পাশাপাশি তরুন এই লেখককে সাধুবাদ জানাচ্ছি তার যোগ্য নেতৃত্বে বিনোদনের রঙ একদিন শুধু চট্টগ্রামের পাঠকদের মাঝে নয় পুরো বাংলাদেশের পাঠকদের মাঝে সমাদৃত হবে। বিশেষ অতিথির বক্তব্যে সকল অতিথিবৃন্দ বিনোদনের রঙ এর প্রশংসা করেন। এতে সীমাবদ্ধতার মাঝেও বিনোদনের রঙ নিয়মিত বের হয় সে জন্য বিনোদনের রঙ পরিবারকে ধন্যবাদ জানান। প্রধান সম্পাদক আলী আহমেদ শাহিন বলেন, চট্টগ্রামের পাঠকদের কাছে বিনোদনের রঙ প্রশংসিত হচ্ছে এটা আমাদের পত্রিকাটির সফলতা। আজকের অনুষ্ঠানের যারা অতিথি হয়েছে এসেছেন তারা সবাই সমাজের আলোকিত গুণীজন।আপনারা সবাই বিনোদনের রঙ এর প্রশংসা করছেন তাই আমি এই পত্রিকাটির প্রধান সম্পাদক হিসেবে গর্ববোধ করছি। বিশেষ করে এই পত্রিকাটির সম্পাদক নাসির হোসাইন জীবনকে ধন্যবাদ ও কৃতজ্ঞতা জানাই আমাকে এই পত্রিকাটির সাথে যুক্ত থাকার জন্য সার্বিক সহযোগিতা করার জন্য। সম্পাদক নাসির হোসাইন জীবন বলেন বিনোদনের রঙ এর ৪র্থ বর্ষপূতি অনুষ্ঠানটি সফল করার জন্য কৃতজ্ঞতা উপস্থিত সম্মানিত অতিথি ও বিনোদনের রঙ পরিবারকে। যারা প্রত্যক্ষ ও পরোক্ষভাবে সহযোগিতা করেছেন। বিনোদনের রঙ আপনাদের সকলের সহযোগিতায় আগামীতে আরো মসৃন ও সুন্দর পরিচ্ছন্নভাবে নিয়মিত বের হবে সে প্রত্যয় এবং আপনাদের পরামর্শ ও সহযোগিতায় বিনোদনের রঙ চট্টগ্রামের সংস্কৃতিতে গুরুত্বপূর্ণ অবদান রাখবে সে প্রত্যাশা করছি। এরপর সমাজের বিভিন্ন ক্ষেত্রে অবদানের জন্য ‘বিনোদনের রঙ’ সম্মাননা ২০১৮ প্রদান করা হয়। পদকপ্রাপ্ত গুণীজনরা হলেন- ফজল আহম্মদ (মুক্তিযুদ্ধে অবদানের জন্য), ওস্তাদ মিহির লালা (মুক্তিযুদ্ধ ও সঙ্গীতে অবদানের জন্য), রবিউল আলম (মঞ্চ নাটকে অবদানের জন্য), আলাউদ্দিন তাহের (সঙ্গীতে অবদানের জন্য), কবি শাওন পান্থ (সফল সংগঠক হিসেবে গুরুত্বপূর্ণ অবদানের জন্য), রাজীব বসাক (যাদু শিল্পে গুরুত্বপূর্ণ অবদানের জন্য), দিলরুবা খানম (সফল উপস্থাপনার জন্য), সেতু বিশ্বাস (নৃত্য শিল্পে অবদানের জন্য), শাকিলা গাফ্ফার (সফল সংগঠক হিসাবে অবদানের জন্য), লায়ন এম এ মুছা বাবলু এম জে এফ(সমাজ সেবায় গুরুত্বপূর্ণ অবদানের জন্য), আলহাজ্ব সফর আলী (সমাজসেবায় গুরুত্বপূর্ণ অবদানের জন্য), ইঞ্জিনিয়ার জাবেদ আবসার চৌধুরী (সমাজসেবায় গুরুত্বপূর্ণ অবদানের জন্য), মোহাম্মদ আবদুল রকিব (সমাজসেবায় গুরুত্বপূর্ণ অবদানের জন্য)। এরপর শুরু হয় মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান। আবৃত্তি পরিবেশন করেন শব্দনোঙর আবৃত্তি সংগঠন ও উচ্চারক আবৃত্তি কুঞ্জ। নৃত্য পরিবেশন করেন নিক্কন একাডেমী ও নৃত্যম একাডেমী, সেতু বিশ্বাস ও সোমা বোসের নৃত্য পরিচালনায় একঝাক নৃত্য শিল্পীদের পরিবেশনায় মুগ্ধ সকলে। যাদু পরিবেশন করেন চট্টগ্রামের উদীয়মান যাদু শিল্পী মোহাম্মদ শেখ। যাদুশিল্পী শেখ-এর যাদুময়তায় উপস্থিত সকলেই উচ্ছ্বাসিত। এরপর পরিবেশন করা হয় সঙ্গীতানুষ্ঠান। গান পরিবেশন করেন চট্টগ্রাম স্বনামধন্য শিল্পীরা। এরমধ্যে আলাউদ্দিন তাহের, সাংবাদিক নাসির হোসাইন জীবন, মাসুদ, শাহীন রহমান, অভিষেক, রিপন নন্দি, এস বি সুমি, সমিরণ পাল, রোমেল, সানজু ও অনেকে। যন্ত্র সংগীতে সহযোগিতা করেন রুটস্ এ্যাকোস্টিক টিম। কারীগরি সহযোগিতায় ল্যান্স প্লাস। বিনোদনের ৪র্থ বর্ষপূর্তি অনুষ্ঠানটি জমকালো আয়োজনে অনুষ্ঠিত হয় যা উপস্থিত সকলের কাছে প্রশংসিত হয়।

Share on facebook
Facebook
Share on twitter
Twitter
Share on linkedin
LinkedIn
Share on whatsapp
WhatsApp
Share on email
Email
Share on print
Print

আজকের সর্বশেষ সংবাদ